February 3, 2023, 4:49 pm

অবিশ্বাস্য ভবিষৎবাণীঃ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনাল যে দুই দল

প্রতিনিধির নাম 63 বার
আপডেট : শুক্রবার, নভেম্বর ৪, ২০২২

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া। এবার তারা ঘরের মাঠে সীমিত ওভারের বিশ্ব আসরে খেলছে। তবুও তারা সেমি ফাইনালের দৌড়ে অনেকটাই পিছিয়ে আছে। তাদের এই ব্যর্থতার জন্য অনেক প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হবে

বলে মনে করেন অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক রিকি পন্টিং। যদিও পন্টিং তাদের সেরা তিনে রাখছেন সেমিফাইনালের দৌরে। সেরা চারের জন্য পন্টিংয়ের পছন্দের বাকি দুই দল হলো ভারত ও ইংল্যান্ড। যদিও এখনও পর্যন্ত কোনো দলই

সেমিফাইনান নিশ্চিত করতে পারেনি। আগামী দুইদিনই দলগুলো ভাগ্য অনেকটাই নিশ্চিত করে দেবে। নিজের ভাবনার কথা জানিয়ে পন্টিং বলেন, ‘যদি তারা এটা (সেমিফাইনালে যেতে না পারে) না করতে পারে তাহলে আমি নিশ্চিত তারা বিভিন্ন

প্রশ্নের সম্মুখীন হবে। কারণ আমি তাদের শীর্ষ তিনে রেখেছি। আমার মনে হয় অস্ট্রেলিয়া, ভারত ও ইংল্যান্ডের মধ্যে দুই দল ফাইনাল খেলবে।’ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের গত আসর হয়েছিল সংযুক্ত আরব আমিরাতে। কেউই সে সময় অস্ট্রেলিয়াকে ফেভারিট

ধরেনি। সবাইকে অবাক করে দিয়ে আরব আমিরাতের কন্ডিশন জয় করে শিরোপা জিতেছিল অ্যারন ফিঞ্চের দল। এবার যেহেতু নিজেদের কন্ডিশনে খেলা তাই অস্ট্রেলিয়ার পক্ষেই বাজি ধরছেন পন্টিং। বিষয়টি খোলাসা করে সাবেক এই অজি অধিনায়ক বলেন,

‘কারণ সর্বশেষ বিশ্বকাপে কেউই অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে বাজি ধরেনি। বিশেষ করে সংযুক্ত আরব আমিরাতের কন্ডিশনের কারণে তারা মানিয়ে নিতে পারবে কিনা সেটা নিয়েই শঙ্কা ছিল। কিন্তু এখন তারা নিজেদের ঘরের কন্ডিশনে খেলছে এবং এই কন্ডিশনে তারা অনেক ক্রিকেট খেলেছে।’

নিজেদের ঘরের মাঠে অনেক ম্যাচ খেলায় দলটির অভিযোগেরও কোনো সুযোগ দেখছেন না পন্টিং। তিনি বলেন, ‘আমি ভেবেছিলাম অজিরা খুব গুছিয়ে খেলতে নামবে। কিন্তু তাদের ফর্মটা প্রত্যাশা অনুযায়ী হয়নি এবং তারা এখানে অনেক টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছে। তাই প্রস্তুতির ক্ষেত্রে এটা নিয়ে কোনো অভিযোগ থাকতে পারে না।’


এ জাতীয় আরো সংবাদ

Warning: Undefined variable $themeswala in /home/khandakarit/pratidinerpost.com/wp-content/themes/newsdemoten/single.php on line 229

Warning: Trying to access array offset on value of type null in /home/khandakarit/pratidinerpost.com/wp-content/themes/newsdemoten/single.php on line 229