বৃহস্পতিবার, ১৯ মে ২০২২, ০১:৪৯ পূর্বাহ্ন

কুলিয়ারচরে সাংবাদিক পরিচয়ে প্রবাসীকে মামলার হয়রানি ও হুমকি

তানভীর আহমেদ স্টাফ রিপোর্টার / ৫ বার
আপডেট : বুধবার, ৬ অক্টোবর, ২০২১
কুলিয়ারচরে_সাংবাদিক_পরিচয়ে_প্রবাসীকে_মামলার_হয়রানি_ও_হুমকি

তানভীর আহমেদ স্টাফ রিপোর্টার: কুলিয়ারচরে সাংবাদিক পরিচয়ে প্রবাসীকে মামলার হয়রানি ও হুমকি। কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচরে কথিত সাংবাদিক কাউসার হামিদ ও তার সহযোগী মৌসুমী আক্তারের কু প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় প্রবাসি আতিকুল ইসলাম ওরুফে আতিক হাসান নিলয়কে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ পাওয়া গেছে।

কথিত সাংবাদিকের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ভুক্তভোগী একাধিক ব্যক্তি। বর্তমানে প্রবাসে থাকা ওই যুবক রামদী ইউনিয়নের পীরপুর গ্রামের মৃত জুলহাস মিয়া ছেলে আতিক হাসান নিলয়। তিনি একজন সৌদি প্রবাসী।

আজ বুধবার বিকেলে নিজ বাড়িতে এই সংবাদ সম্মেলন করা হয়। এ সময় ভুক্তভোগী পরিবারের লোকজন উপস্থিত ছিলেন। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে ভুক্তভোগী পরিবার জানান, ৩ মাস পূর্ব থেকে আতিক হাসান নিলয় কে প্রেমের প্রস্তাব দেয় একই উপজেলার খরকমারা গ্রামের গোলাপ মিয়ার মেয়ে মৌসুমী আক্তার।

এতে রাজি না হওয়ায় নিলয়কে মামলা ও পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশের হুমকি দেয় কথিত সাংবাদিক কাইসার হামিদ ও মৌসুমী আক্তার। এরই জেরে গত ৬ অক্টোবর কুলিয়ারচর থানায় নিলয়ের বিরুদ্ধে একটি সাধারণ ডায়েরি করে মৌসুমী আক্তার ডাইরি নং-১৩৬৭। স্থানীয় পূর্বকন্ঠ পত্রিকায় সংবাদ প্রচার করে।

নিলয়ের মা রহিমা আক্তার সাংবাদিকদের জানান, ‘আমি আমার পরিবার নিয়ে নিরাপত্তাহীনতায় আছি। প্রধানমন্ত্রীসহ প্রশাসনের কাছে আমার ছেলের সুবিচার দাবি করি। এ বিষয়ে অভিযুক্ত কাইছার হামিদ ও মৌসুমী আক্তারসাথে যোগাযোগের চেষ্টা করলে তাদেরকে খুঁজে পাওয়া যায়নি।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন কাইছার হামিদ কর্তৃক হয়রানির শিকার একাধিক ভুক্তভোগী।ফারজানা আক্তার ,মইনুদ্দিন, শিরিন আক্তার ,মকবুল হোসেন প্রমুখ।

এই ওয়েবসাইটের লেখা আলোকচিত্র, অডিও ও ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পুর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ।


এ জাতীয় আরো সংবাদ