বুধবার, ১৮ মে ২০২২, ০৭:১২ অপরাহ্ন

নরসিংদীর মির্জারচরে র‍্যাবের সঙ্গে গুলি বিনিময়, দেশীয় ও আগ্নেয়াস্ত্র-গুলিসহ গ্রেফতার ১২

নিজস্ব প্রতিনিধি, প্রতিদিনের পোস্ট / ৪ বার
আপডেট : বুধবার, ১০ নভেম্বর, ২০২১
নরসিংদীর_মির্জারচরে_র‍্যাবের_সঙ্গে_গুলি_বিনিময়_দেশীয়_ও_আগ্নেয়াস্ত্র_গুলিসহ_গ্রেফতার_১২

নিজস্ব প্রতিনিধি, প্রতিদিনের পোস্ট: নরসিংদীর মির্জারচরে র‍্যাবের সঙ্গে গোলাগুলি আগ্নেয়াস্ত্র-গুলিসহ গ্রেফতার ১২।

নির্বাচনী সহিংসতা প্রতিরোধসহ অবাধ-সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন আয়োজনের লক্ষ্যে র‍্যাব-১১, নরসিংদীর একটি দল লে: কর্ণেল তানভীর মাহমুদ পাশার নেতৃত্বে গত মঙ্গলবার ভোরে নরসিংদীর সদর উপজেলা আলোকবালি, ও রায়পুরা উপজেলার নিলক্ষা ও মির্জারচরে অভিযান পরিচালনা করে।

অভিযান পরিচালনার সময় মির্জারচরের কুখ্যাত স্বাধীন বাহিনী র‍্যাবের দলকে লক্ষ্য করে গুলিবর্ষণ করে। প্রচণ্ড গোলাগুলির এক পর্যায়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে র‍্যাব পালটা গুলি চালিয়ে হত্যা মামলার আসামিসহ পলাতক কুখ্যাত সন্ত্রাসী স্বাধীনসহ অন্যদের আটক করতে সমর্থ হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- স্বাধীন বাহিনীর প্রধান আব্দুস সাত্তার ওরফে স্বাধীন, কালন মিয়া, নাজির হোসেন, বিল্লাল হোসেন, জুয়েল, আবুল হোসেন, মো: আনিছ, খোকন মিয়া, মিজানুর রহমান, আইয়ুব আলী, নাসির ও লিটন, এদের সকলের বাড়ী রায়পুরা উপজেলার মির্জারচরে।

অভিযান পরিচালনার সময় আলোকবালি ও নিলক্ষা ইউনিয়নের সন্ত্রাসীরা আত্মগোপন করলেও রায়পুরা উপজেলার মির্জারচরের স্বাধীন বাহিনী র‍্যাবকে উদ্দেশ্য করে এলোপাতাড়ি প্রায় ৩০ রাউন্ড গুলি ছুড়ে। র‍্যাবও জনমালের নিরাপত্তার স্বার্থে পালটা ১২ রাউন্ড গুলি চালিয়ে স্বাধীন বাহিনীকে আটক করেন। তবে এতে কেউ হতাহত হয়নি।

সংবাদ সম্মেলনে লে: কর্ণেল তানভীর মাহমুদ পাশা জানান, এসময় তাদের কাছ থেকে ১টি রিভলবার, ২ রাউন্ড রিভলবারের গুলি, ১টি ইউএস-এর তৈরী শর্ট গান, ২৯ রাউন্ড শর্ট গানের গুলি, ১টি ওয়ান সুটার গান, ৬টি রাম দা, ১টি ছুড়া, ১টি তলোয়ার, ১টি কিরিচ, ২টি সামুরাই, ১টি চাপাতি, ৩টি বুলেট প্রুফ জ্যাকেট, নগদ ৮ হাজার ৮৮০ টাকা এবং ৮টি মোবাইল ফোন উদ্ধার করা হয়।

স্বাধীন বাহিনীর সদস্যরা এলাকায় চাঁদাবাজী, ডাকাতি, অগ্নিসংযোগ, ভয়ভীতি প্রদর্শন, হত্যাসহ ব্যাপক সহিংসতা করে এলাকায় ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করেছিল। প্রাথমিক অনুসন্ধানে র‌্যাব জানায়, গ্রেফতারকৃতরা মির্জারচর এলাকায় চিহ্নিত অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী উক্ত আসামীরা দীর্ঘ দিন যাবৎ আইন প্রয়োগকারী সংস্থার ধরা ছোয়ার বাইরে ছিল। তাদের বিরুদ্ধে রায়পুরা থানাসহ অন্যান্য থানায় খুন, হত্যাচেষ্টা, মাদক মামলাসহ একাধিক অস্ত্র মামলা রয়েছে।

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পুর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ।


এ জাতীয় আরো সংবাদ